বিয়েতে এসে করোনায় মা ও ৪ ছেলের মৃত্যু

বিডি7ডে ডেস্ক:  ভারতের ঝাড়খণ্ডে বিয়ে বাড়িতে এসে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মা এবং তার চার ছেলের মৃত্যু হয়েছে।  খবর আনন্দবাজার পত্রিকার।

খবরে বলা হয়েছে, দিল্লি থেকে নাতির বিয়ের অনুষ্ঠানে ধানবাদের কাতরাসে এসেছিলেন ৮৮ বছরের বৃদ্ধা। ২৬ জুন ওই বিয়ের অনুষ্ঠানে মায়ের সঙ্গে যোগ দেন তার ছয় ছেলের মধ্যে চার ছেলে। বিয়ের অনুষ্ঠানের পরেই করোনায় আক্রান্ত হন বৃদ্ধা ও ওই চার ছেলে। ধানবাদের একটি হাসপাতালে ৪ জুলাই ওই বৃদ্ধার মৃত্যু হয়। এরপর ১০ জুলাই থেকে ১৯ জুলাইয়ের মধ্যে তার চার ছেলেরও মৃত্যু হয়েছে।

আনন্দবাজার জানায়, ওই বৃদ্ধার এক ছেলে ক্যানসার আক্রান্ত ছিলেন। তার চিকিৎসা চলছিল জামসেদপুরের একটি হাসপাতালে। সেখানে ১৬ জুলাই তার মৃত্যু হয়। বেঁচে আছেন শুধু বৃদ্ধার দিল্লি নিবাসী এক ছেলে। ওই বিয়েতে উপস্থিত আরও দুজনের শরীরে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঘটেছে। তাদেরও চিকিৎসা চলছে।

এই ঘটনায় পুরো কাতরাস জুড়ে শোকের ছায়া নেমেছে। স্থানীয় ও জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গিয়েছে, ওই বৃদ্ধার করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা যাওয়ার আগেই তার ৬৫ বছরের এক ছেলে ও ৬৭ বছরের আর এক ছেলে করোনা আক্রান্ত হয়ে ধানবাদের একটি হাসপাতালে ভর্তি হন। ধানবাদের ওই হাসপাতালে ৬৫ বছরের ছেলের মৃত্যু হয় ১০ জুলাই। ১১ জুলাই মারা যান ৬৭ বছরের ছেলেও।

বিয়ের অনুষ্ঠানের পরপরই শরীর খারাপ নিয়েই রাঁচি ফিরে গেছিলেন তার ৭২ ও ৭০ বছরের দুই ছেলে। রাঁচিতে তাদের করোনা রিপোর্ট পজেটিভ আসে। তাদের রাঁচির রিমসে ভর্তি করা হলে ১২ জুলাই ৭২ বছরের ছেলের মৃত্যু হয়। ১৯ জুলাই ৭০ বছরের ছেলেরও মৃত্যু হয়। ঘটনায় শোকস্তব্ধ বৃদ্ধার পরিবার। আতঙ্কে আছে কাতরাসের ওই বিয়েতে যারা এসেছিলেন।